হিন্দুধর্মের পূজায় ঘট ব্যবহার করা হয় কেন?

হিন্দুধর্মের পূজায় ঘট ব্যবহার করা হয় কেন?

ছোটবেলা থেকে অনেকের মনে প্রশ্ন হতে পারে,যেকোনো পুজোয় ঘট কেন ব্যবহার করা হয়? দুর্গা পুজা, লক্ষ্মী পুজা, সরস্বতী পুজা , মনসা পুজা প্রায় সব পুজায় দেখা যায় যে প্রতিমা থাকুক আর না থাকুক ঘট থাকবেই।

যে কোন পুজোর সময় ঘট স্থাপন করতে হয়। ঘট কোন দেবী বা দেবতার প্রতিমা নয়। ঘট ভগবানের নিরাকার অবস্থার প্রতীক। হিন্দুরা পুজোর সময় যেমন ভগবানের সাকার স্বরূপ কে পুজো করে তেমনি নিরাকার স্বরূপকেও পুজো করেন। তাই ঘট স্থাপন প্রতি পুজোতে একান্ত আবশ্যক। ঘট স্থাপন ছাড়া পুজো অসম্পূর্ণ বলে মনে করা হয়। প্রায় সব পুজোয় ঘট লাগে।

Read Free Astrology Magazine

যারা পুজোর কাজের সাথে জড়িত আমরা জানি ঘটের মধ্যে অনেক উপাদান ব্যবহার হয়। যেমন- পঞ্চশস্য, পঞ্ছগুড়ি,পঞ্চপল্লব,পঞ্চরত্ন, জল,মাটি,নারিকেল,গামছা,কান্ডকাঠি ইত্যাদি।

আজকে আমরা এসব উপাদানগুলোর তাৎপর্য সম্পর্কে জানব।

পূজায় ঘট আমাদের দেহের প্রতিরুপ………

*****পুজোর সময় পঞ্চগুড়ি দিয়ে পিঠ তৈরি করা হয় ।
_______এই পঞ্ছগুড়ি_পঞ্চমহাভুত (অর্থাৎ ক্ষিতি , অপ , তেজ , মরুৎ , ব্যোম ) এর প্রতিক।

এই পঞ্চমহাভুত এর উপর মৃত্তিকা দিয়ে পিঠ তৈরি করা হয়।
*****মৃত্তিকা বেদীর উপর পঞ্চশস্য দেওয়া হয়।
_____এই পঞ্চশস্য আমাদের পঞ্চবৃত্তি (কাম,ক্রোধ , লোভ, মোহ ও মাৎসর্য) এর প্রতীক ।
এর ওপর ঘট উপস্থাপন করা হয় ।
ঘট আমাদের দেহের প্রতিক। আধ্যাত্মিক ভাষায় দেহকে দেহঘটও বলা হয়।

করোনার আশঙ্কায় সিল করা হল ভাটপাড়া ৮ নং ওয়ার্ড

*******ঘটের ভেতর পঞ্চরত্ন দেওয়া হয়।
_______পঞ্চরত্ন হল এই পঞ্চইন্দ্রিয়ের (চক্ষু, কর্ন, নাসিকা, ত্বক ও জিহ্বা) প্রতিক।

********এর পর ঘটে জল ঢেলে পূর্ণ করা হয়।
________ জল হল দেহরস বা রক্ত।

*******ঘটে এবার পঞ্চপল্লব দেওয়া হয়।
_________এই পঞ্চপল্লব এই পঞ্চবায়ু (পান, অপান, উদ্যান, সমান , ব্যান)এর প্রতিক ।

******এর উপর ডাব বা নারিকেল দেয়া হয়। আমরা জানি নারিকেল এ আমাদের মুখের মত চোখ, মুখ ,নাক দেখা যায়।

_______সেই কারনে নারিকেল আমদের মুখমন্ডলের প্রতিরুপ।

মস্তক থাকলে তাতে আচ্ছাদন দিতে হয়। তাই নারিকেল এর উপর গামছা বা বস্ত্র দেওয়া হয়।

এই হল আমাদের দেহের প্রতিরুপ।

—আর কান্ডকাঠি হল চারবেদের প্রতীক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x
Translate »