করোনা মৃতের সংখ্যা 2500 এর কাছাকাছি, দেশজুড়ে আক্রান্ত ছাড়াল 7400

করোনায় সংক্রামিত রোগীর সংখ্যা বাড়ছে দেশ জুড়ে

করোনা : চলছে লকডাউন আর এরই মাঝে দেশজুড়ে ফের বাড়ল আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। শেষ 24 ঘন্টায় করোনা সংক্রামনে মারা গেলেন 122 জন। তাহলে করোনা সংক্রামনে মোট মৃতের সংখ্যা দাড়াল 2415 জনের মতো। প্রায় 2500 এর কাছাকাছি।

স্বাস্থ্য মন্ত্রক সূত্রের খবর, 74 হাজার 281 জন আক্রান্তের মধ্যে অ্যাক্টিভ কেস 47 হাজােরর কিছু বেশী। এরই মাঝে সুস্থ হয়েছেন 24386 জন রোগী।

12ই মে 2020 তে প্রধান মন্ত্রী তার ভাষণে চতুর্থদফার লকডাউন ঘোষণা করেছেন যা শুরু হবে 17ই মে থেকে। এবং এই চতুর্থদফার লকডাউনে কি কি নিয়ম থাকতে তা আগেই জানিয়ে দেওয়া হবে কেন্দ্র সরকারের পক্ষ থেকে।

আরো পড়ুন আত্মনির্ভর প্যাকেজ 20 লক্ষ কোটি টাকার মধ্যবিত্তদের আশার আলো মোদী

সারা দেশে মহারাষ্ট্রে তেই করোনা সংক্রমণ ও মৃতের হার সব থেকে বেশী। তারপরই রয়েছে গুজরাটের স্থান। তৃতীয় স্থানে রাজধানী শহর দিল্লি।

মঙ্গলবার 12ই মে 2020 জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দিতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, করোনা মহামারিতে আর্থিক সংকট দূর করতে এবং ভারতকে আত্মনির্ভর হওয়ার জন্য 20 লক্ষ কোটি টাকাট আর্থিক প্যাকেজ এর একটি প্রকল্প ঘোষনা করেছেন তিনি। যা ক্রমশ প্রকাশ করবেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন।

বিনামূল্যে জ্যোতিষ ম্যাগাজিন পড়ুন

অনেকেই বলছেন মোদী যে সকল ভাষণ বা আশ্বাস দিয়েছিল তা কোনাটই পুরোন হয়েনি। উদাহরণ সরূপ অনেকে বলছেন 15 লাখ টাকা আসেনি। বিদেশ থেকে কালো টাকা আসেনি। নোটবন্দীর পড়েও নতুন জাল টাকা ভারতে এসেছে ইত্যাদি ইত্যাদি।

তবে মঙ্গলবাররে ভাষণে কিছু মানুষের মনের মধ্যে আশার সঞ্চার হয়েছে। বাকিটা সময় বলবে।

আমরা বলছি, আপানারা সর্তক থাকুন। লকডাউন মেনে চলুন। একমাত্র লকডাউনের সর্তকতা ও সচেতনতাই আমাদের করোনা মোকাবিলায় একমাত্র হাতিয়ার।

লকডাউনের মধ্যে আমরা দেখতে পাচ্ছি রাজনৈতিক সংঘাত। কেউ চাল চুরি করছে আবার কেউ ডাল। কিন্তু মরছে সাধারণ মানুষ। মরছে সাধারণ মধ্যবিত্ত।

[jetpack_subscription_form show_only_email_and_button=”true” custom_background_button_color=”undefined” custom_text_button_color=”undefined” submit_button_text=”Subscribe” submit_button_classes=”undefined” show_subscribers_total=”true” ]

তাহলে কি ধ্বংসের মুখে মধ্যবিত্ত সম্প্রদায়। কি ভাবছেন আপনারা ? শুধু ভাবলে হবে আর কত ভাববেন। মধ্যবিত্ত ভেবে ভেবেই শেষ।

মঙ্গলবার 12ই মে 2020 জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দিতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, করোনা মহামারিতে আর্থিক সংকট দূর করতে এবং ভারতকে আত্মনির্ভর হওয়ার জন্য 20 লক্ষ কোটি টাকাট আর্থিক প্যাকেজ এর একটি প্রকল্প ঘোষনা করেছেন তিনি। যা ক্রমশ প্রকাশ করবেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x
Translate »